চলন্ত ট্রেন থেকে লাফ দিয়ে নামলেন দুই যুবতী, নেটদুনিয়ায় ঝড়ের গতিতে ভাইরাল ভিডিও

অন্যান্য সব যানবাহনের মধ্যে ট্রেন অধিকাংশ মানুষ ব্যবহার করে থাকেন। অন্যান্য সব যানবাহনের থেকে ট্রেনের খরচা অনেক কম, এবং ট্রেনে করে অনেক দূর দূরান্ত অব্দি যাওয়া যায়। বিশেষ করে নানা জায়গায় যাওয়ার জন্য ট্রেনের থেকে ভাল মাধ্যম হয় না।

অর্থনৈতিক দিক দিয়ে দুর্বার মানুষরা ট্রেনে করে যাওয়াই স্বাচ্ছ’ন্দ্যবোধ করেন। রোজকার পথে, স্টেশনের। পর স্টেশন যেতে ট্রেনই ভরসা। কিন্তু প্রায়ই শোনা যায় ট্রেন এ’ক্সি’ডেন্ট এর কথা।

কখনোবা ভিড়ে নামতে গিয়ে, কখনো তাড়াহুড়ো করে পড়ে গিয়ে নানা রকম অ্যা’ক্সি’ডেন্ট হয়ে থাকে মানুষের। আসলে ট্রেনকে যেহেতু অধিকাংশ মানুষ তাদের যাতায়াতের মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করে থাকেন, তাই ট্রেনে ভিড় হয় সবচেয়ে বেশি।

এই ভিড়েই অনেক মানুষ ধা’ক্কা ধা’ক্কি করে উঠতে গিয়ে বা নামতে গিয়ে পড়ে যান। এর ফলে মানুষের প্রা’ণহা’নি ঘটতে দেখা গেছে। দৌড়ে ট্রেন ধরতে গিয়েও অনেকে ট্রেনের চাকার তলায় পরে গিয়ে নিজের প্রা’ণ হারিয়েছেন।

আবার অনেককে দেখা যায়, ট্রেনে উল্টোপাল্টা স্টা’ন্ট করতে, কখনো বা দরজায় দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে ঝু’লতে, কখনো বা ট্রেনের ছাদে চলে নানা রকম অ’’ঙ্গভ’’ঙ্গি করে নিজের নাম কেনার জন্য অনেকে করে থাকেন।

কিন্তু এগু’লি অত্যন্ত ক্ষ’তিকর এবং ভ’য়াবহ এতে মানু’ষের প্রা’ণ ও যেতে পারে। সম্প্রতি ভাইরাল হল এমন একটি ভিডিও।ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, দুই মহিলার ট্রেনের দরজায় রড ধরে ঝু’লছেন। অত্যন্ত বি’প’দজনক ভাবেই রড ধরে ঝুল’ছেন তারা।

এরপর ট্রেন না থামা অবস্থাতেই, পরে ট্রেন থেকে লা’ফ মেরে স্টেশনের আগেই নিচে নেমে যান। মহিলাদের এই কার্য’কলাপে অবা’ক এবং ক্ষু’ব্ধ হয়েছেন দর্শক।

নেটিজেনদের বক্তব্য অনুযায়ী, এভাবেই শত শত মানুষ ট্রেনে প্রা’ণ হারান। অনেকের দাবি এই যে মহিলা গু’লির হয়তো টিকিট ছিল না তাই আগে স্টেশন আসার আগে ট্রেন থেকে নেমে গেছে।

নতুন কিছু টাকা বাঁ’চাতে গিয়ে পুরো জীব’নের বা’জি লাগানো এই জিনিসটি কিছুতেই মেনে নিতে পারছেন না দর্শকরা। মহিলারা যেভাবে ট্রেন থেকে নামল, তাতে কি একটুখানি ভু’ল হলেই তারা সেখানেই প্রা’ণ হারা’তেন। এমত অবস্থায় অনেকের পরিবার আর্থি’কভাবে সবল নয়,

এজন্যই হয়তো ওই দুটি মহিলা এভাবেই ট্রেন থেকে নেমে লা’ফ দিয়েছে। তবে এ ধরনের আচ’রণ কখনোই কাম্য নয়। ভিডিওটি এখনো অবধি ৩ কোটির বেশি মানুষ দেখেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *