যে কারনে ঐশ্বরিয়া-অভিষেকের স’ম্পর্কে ফা’টল

অভিষেক বচ্চন এবং ঐশ্বরিয়া রায়। দু’জনেই বলিউডের অভিনেতা এবং অভিনেত্রী। ভালোবেসে বিয়ে করে তাদের সংসারে আরাধ্য নামে এক কন্য সন্তানও রয়েছে। বিয়ের আগে থেকেই সবসময় সমালোচনার মধ্যেই ছিলেন তারা।

বিয়ের পরেও যেনো সেটি কোন অংশে কমেনি। তাদের বিয়ের পরেও গু’ঞ্জন উঠেছিলো অভিষেক বচ্চন ডিভোর্স দিতে চলেছেন ঐশ্বরিয়াকে? একসময়ে রাতারাতি এই খবর পেয়ে উত্তাল হয়েছিলো গোটা বলিউড মহল।

আর সে কথা খোদ জানিয়েছিলেন অমিতাভ বচ্চন। এই নিয়ে শুরু হয়েছিলো ঘোর জল্পনা, কিন্তু এর উত্তরে জুনিয়র বচ্চন কি বলেছিলেন জানেন কি? বেশ কিছুদিন আগে ঐশ্বরিয়ার একটি ভিডিও ক্লিপিংস ভাইরাল হয়েছিলো সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সেখানেই তাদের দাম্পত্য কলহ প্রথম প্রকাশ পায়। শোনা গিয়েছিলো, অভিষেক ডিভোর্স দিতে চলেছেন ঐশ্বরিয়াকে। এই ভিডিও দেখা মাত্রই মা’রাত্মক প্রতিক্রিয়া করেন অভিষেক।

এমনকি সংবাদমাধ্যমও এইরূপ প্রশ্ন করায় বেজায় চটে যায় জুনিয়র বচ্চন। অভিষেক স্পষ্ট জানিয়েছিলেন, আমা’দের ব্যক্তিগত জীবনে কোনো তৃতীয় ব্যক্তি এসে নাক গলাক সেটা আমি কোনো দিনও মেনে নেবো না।

আর কোনটা সত্যি কোনটা মিথ্যা সেটা জানারও দরকার নেই আমা’র। সমাজ ও ইন্ডাস্ট্রি জানে আমর’া কতোটা দু’জন দু’জনকে ভালোবাসি।

তিনি বলেন, কারো জীবন মিডিয়া কোনোদিনো বিচার করতে পারে না। তবে স’ম্পর্কে যেমন ঝ’গড়া হয় তেমনি কঠিন হয় বোঝাপড়ার দিকটি। আমা’দের মধ্যে যথেষ্ট আন্ডারস্টেন্ডিং আছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *