বিয়ের পর পরকীয়া, স্ত্রী অন্য প্রেমিকের সাথে খুশি, তাই স্বামী নিজের হাতে স্ত্রীকে তুলে দিলেন প্রেমিকের হাতে, ভিডিও দেখুন

হা’ম দিল দে চুকে সানাম ছবিটি মনে আছে? যেখানে অজয় দেবগন তার স্ত্রী ঐশ্বর্য রায়ের হাতটি তার প্রেমিক সালমান খানের হাতে খুশিমনে দিয়ে দিয়েছিলেন। এই ছবিটি দেখার পরে আমা’দের সবার মনে আসতে পারে যে বাস্তব জীবনে কি কখনো এরকম ঘটতে পারে? যদি আপনাকে বলি হ্যাঁ বাস্তব জীবনেও এমন ঘটে তবে কি আপনি বিশ্বাস করবেন? তাহলে আসুন জানা যাক আসল ঘটনাটি। বিহারের ছাপড়া জেলার ঘেঘাটা গ্রামে একজন স্বামী তার স্ত্রীকে তার প্রেমিকের সাথে বিবাহ দিয়েছেন। যখন

ল’ক’ডাউনে খুব ক’ষ্টে আছেন সকলের প্রিয় রানুদি, দিলেন কেঁ’দে, ভাইরাল ভিডিও!

সত্যিই আজব এই মাধ্যম হলো সোশ্যাল মিডিয়ায় রাতারাতি কাকে জেস্টার করে দেয় তা আমর’া আগে থেকে টের পাই না এর আগে আমা’দের এমনটা ধারণা ছিল যে সেলিব্রিটি বা জনপ্রিয় হয়ে উঠতে গেলে দেখতে সুন্দর শরীরে গ্ল্যামা’র থাকা দরকার পড়ে কিন্তু সেই ঘটনাকে সম্পূর্ণ মিথ্যে প্রমাণ করে দিয়েছে রানাঘাট স্টেশন চত্বরে গাওয়া গান গাওয়া রানু মন্ডল মিডিয়া তাকে তুলে ধরেছে বিশ্ব দরবারে । কিন্তু বর্তমানের এই কঠিন পরিস্থিতিতে তিনি কেমন আছেন কিভাবে চলছে তার সংসার সেই

কিভাবে তা-ণ্ড-ব চালাচ্ছে ঘূর্ণিঝ’ড় “ইয়াস”, বড় বড় নারকেল গাছ নু’ইয়ে ভে-ঙে প-ড়’ল মাটির মধ্যে,তুমুল ভাইরাল ভিডিও!

প্রাকৃতিক বি-পর্য-য় মানুষের জীবনকে কতটা দু-র্বিষ-হ করে তুলতে পারে তা হয়তো অনেকেরই ধারণার বাইরে! বি-প-র্যয় বলতে আমর’া সাধারণত ঝড়, বন্যা, খরা, ভূমিকম্প প্রভৃতিকে বুঝি। এর আগেও বিভিন্ন জায়গায় এইসব প্রাকৃতিক বি-প-র্যয় গু’লি সৃষ্টি হওয়ার ফলে ব্যাপক ক্ষ-য়ক্ষ-তি লক্ষ্য করা গিয়েছে। সম্প্রতি আবারও ঠিক একই ঘটনা ঘটল আমা’দের বাংলা সহ ভারতের বেশ কয়েকটি রাজ্যে। বিগত স’প্ত াহ থেকেই আলিপুর আবহাওয়া দ’প্ত র এর তরফ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল খুব শীঘ্রই পশ্চিমব’ঙ্গ সহ দেশের বেশ কয়েকটি রাজ্যের

বড় কিছু করার সংকল্প নিয়ে মায়ের দেওয়া 25 টাকা নিয়ে বাড়ি থেকে বেরিয়েছিলেন, আজ 7 হাজার কোটি টাকার মালিক ইনি

অনেক সময় জীবনের পরিস্থিতি এতটাই খারাপ হয়ে যায় যে আমর’া চাইলেও কিছু করার মতো অবস্থায় থাকিনা। আমা’দের সমস্ত প্রচেষ্টা সত্ত্বেও, যখন আমর’া কিছু করতে অক্ষম হই, তখন অনেক সময় আমা’দের সমাজে খুবই কষ্টের সাথে জীবনযাপন করতে হয়। কিন্তু এই সমস্ত চ্যালেঞ্জ থাকা সত্ত্বেও, অনেক লোক ক্রমাগত তাদের প্রয়াসে নিযুক্ত থাকে। এদিকে, যখনই তার কঠোর পরিশ্রমের ফলশ্রুতি হয়, তার গল্পটি সবাই জানার জন্য কিছুটা মর’িয়া হয়ে পরে। আমর’া আপনাকে ওবেরয় গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান রায় বাহাদুর

মায়ের সাথে বস্তিতে থাকা ছেলেটি আজ যেভাবে হলেন আমেরিকার রোবট গবেষক

এক সময় মুম্বাইয়ের কুরলা বস্তিতে থাকতেন জয়কুমা’র বৈদ্য। বস্তিতে একটা ছোট ঘরে মায়ের স’’ঙ্গে থাকতেন তিনি। দিনের শেষে পাউরুটি, শিঙাড়া বা চা জুটত তাঁদের কপালে। সেই জয়কুমা’রই এখন যু’ক্তরাষ্ট্রে গবেষণা করছেন। শ্বশুর বাড়ির লোকেরা নলিনীকে বের করে দিয়েছিলেন। ছে’লেকে স’’ঙ্গে নিয়ে তিনি ঠাঁই নেন ওই বস্তিতে। ২০০৩ সাল থেকে তাঁদের অবস্থা আরও খা’রাপ হয়ে যায়। নলিনীর মা একটা চাকরি করতেন। মে’য়েকে তিনি অর্থ সাহায্যও করতেন। কিন্তু ২০০৩ সালে অ’সুস্থতার জন্য তাঁকে চাকরি ছাড়তে হয়।দরিদ্রতার প্রভাব

মা’কে ডেকে ছেলে বলছে, মা আমার একটা অনুরোধ রাখবে?

সন্তানেরা যেমন মায়ের কাছে সবথেকে প্রিয় সম্পদ তেমনি মায়েরাও সন্তানের কাছে সবথেকে ভরসার আশ্রয়। মায়ের কাছেই বেশিরভাগ সন্তান দিনের বেশি সময় মানুষ হয়। তাই মায়েদের স’ঙ্গে সন্তানের নাড়ির টান যা সহজে মিলিয়ে যায় না। কিন্তু এমন একটি ঘটনা যা পড়ে আপনি একটু হকচকিয়ে যেতে পারেন কিন্তু শেষ অবধি পড়লে তবেই এর সন্তান ও মা’য়ের সম্পর্ক বুঝতে পারবেন। ছেলে তার মা’কে প্রশ্ন করলেন তিনি তার মা’কে একটি অনুরোধ করতে চান। তার উত্তরে মা সম্মতি জানালে ছেলে

ঘূর্ণিঝড় তাউকটেতে লন্ডভন্ড ভারতের একাংশ, এবার বাংলা কাঁপাতে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় যশঃ আবহাওয়ার খবর

ঘূর্ণিঝড় তাউকটের প্রভাব বাংলায় সরাসরি না পড়লেও, এবার সুন্দরবন তছনছ করতে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘যশ’ (yash)। আবহাওয়া দফতর (weather office) জানিয়েছে, ব’ঙ্গোপসাগর উপকূলবর্তী এলাকায় ২৩ থেকে ২৫ শে মে-র মধ্যে আছড়ে পড়বে ঘূর্ণিঝড় যশ। আরও জানা গিয়েছে, ওমান নামাঙ্কিত এই ঘূর্ণিঝড় আমফানের থেকেও বেশি শক্তিশালী ’হতে পারে। গতবছর করোনার প্রথম পর্বে লকডাউনের মধ্যে বাংলার বিস্তীর্ণ এলাকায় তাণ্ডবলীলা চালিয়েছিল ঘূর্ণিঝড় আমফান। ঘরবাড়ি, দোকানপাট ভেঙে পড়েছিলে, উপড়ে গিয়েছিল বড় বড় গাছ, বিদ্যুতের খুঁটি। বেশকিছু এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ

সমাজের হাজারো প্রতিবন্ধকতা কাটিয়ে মাত্ৰ ৩ ফুট উচ্চতা নিয়ে আজ IAS অফিসার।

সমাজ আজও মেয়েদের বোঝা ভাবে তারওপর আবার যদি মেয়ের শরীরে কোনো খামতি থাকে তাহলে ছোট থেকে তাকে কি ভয়ংকর পরিমান বঞ্চনার শিকার ‘’হতে হয় তা অনেকেরই অজানা। সমস্ত বঞ্চনা প্রতিকূলতা কাটিয়ে অনেকেই জীবনে প্রতিষ্ঠিত হয়ে সমাজের বুকে দৃষ্টান্ত তৈরি করেছে, আরতি ডোগরা তাদেরই একজন। আরতি, উত্তরা খণ্ডের দেরাদুনের বাসিন্দা। আরতির বাবার রাজেন্দ্র ডোগরা সেনার একজন অফিসার আর মা কুমকুম ডোগরা একজন স্কুল শিক্ষিকা।যে কারণে আরতি বঞ্চনার শি’কার তা হলো ওনার উচ্চতা মাত্র তিন ফুট ছয়

গার্লফ্রেন্ডের উৎসাহ তে ক্লাস 12th ফেল এই ট্রাক ড্রাইভার আজ IPS অফিসার।

এক সময় ধনী ব্যক্তিদের বাড়ির কুকুর দেখাশোনা, আবার কখনো ট্যাম্পো চালাতেন, প্রেমিকার উৎসাহে আজ আইপিএস অফিসার।প্রত্যেক ব্যক্তির জীবনে কিছু না কিছু অনুপ্রেরণা থেকে থাকে এবং সেই ব্যক্তি এই উৎসাহের ভিত্তিতে এগিয়ে যায়। এগু’লি ছাড়াও তাদের দ্বারা করে থাকা সংঘর্ষ একদিন সফল হয়, মধ্য প্রদেশের এক ব্যক্তির এমনই একটি গল্প আছে যেখানে তিনি সমস্ত নিন্ম মানের কাজ করেছেন যাতে সে তার পড়াশোনায় খরচ বহন করতে পারে। এই ব্যক্তি কখনও কখনও ধনীব্যক্তিদের বাড়িতে একটি কুকুর কে দেখাশোনা

বিয়ের আগের দিন মেয়েকে পা ধুইয়ে দুধ খেলেন বাবা!

দুধ দিয়ে মেয়ের পা ধুইয়ে, খেয়ে নিলেন মেয়ের পা ধোয়া সেই দুধটুকু। মেয়ের কোনও আপ’ত্তিই কানে তুললেন না তিনি। আলতা পায়ের ছাপ ও নিলেন যত্নে।বাড়ির চৌকাঠ ডিঙিয়ে মেয়েটা যখন পরের বাড়ি চলে যাবে, লোকে বলবে এতদিনে নিজের ঘরে যাচ্ছে মেয়ে, বলবে শ্বশুড়ের ভিটেই মেয়েদের নিজের জায়গা। ঠাকুরমশাই গোত্রান্তর করে দেবেন মন্ত্র পড়ে। কিন্তু বাবা-মায়ের বুকের ভিতর এক পৃথিবী শূন্যতায় যে হাহাকার ওঠে তা শুনতে পায় কজন? সেই ছোট্ট দুটো হাত-পা, সেই চুলের বেণী, সেই চুড়িদারের